অটোরিকশাকে পিষে দিলো বাস, একই পরিবারের ৬ জনসহ নিহত ৭

অটোরিকশাকে পিষে দিলো বাস, একই পরিবারের ৬ জনসহ নিহত ৭

নিউজ ডেস্ক,

মানিকগঞ্জের দৌলতপুরে বাস ও সিএনজি চালিত অটোরিকশার সংঘর্ষে সাত জন নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে রয়েছে একই পরিবারের ছয় সদস্য। তাদের বাড়ি টাঙ্গাইল জেলার নাগরপুর থানার চাষাভাদ্রা গ্রামের বাদ্যকরপাড়ায়। এছাড়া দুর্ঘটনায় অটোরিকশাচালক জামালও (৩২) নিহত হয়েছেন। তার বাড়ি দৌলতপুর উপজেলার সমেতপুর গ্রামে।

শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) বেলা পৌনে ৩টায় মানিকগঞ্জের মুলকান্দি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। একই পরিবারের নিহতরা হলেন গোবিন্দ বাদ্যকর (৩২), তার মেয়ে রাঁধে বাদ্যকর (৪), স্ত্রী ববিতা বাদ্যকর (২৫), বাবা হরে কৃষ্ণ (৫৫), চাচি খুশি বালা (৫০) ও চাচাতো ভাই রামপ্রসাদ বাদ্যকর (৩২)।

দৌলতপুর থানার ওসি রেজাউল করিম বলেন, টাঙ্গাইল জেলার নাগরপুর উপজেলার চাষাভাদ্রা গ্রামের বাদ্যকরপাড়ার গোবিন্দ বাদ্যকর (৩২) তার অসুস্থ মেয়ে রাঁধে বাদ্যকরকে (৪) নিয়ে মানিকগঞ্জ ডাক্তার দেখাতে যাচ্ছিলেন। পথে দৌলতপুর মুলকান্দি এলাকায় তাদের বহনকারী অটোরিকশাটি পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা ভিলেজ লাইনের একটি যাত্রীবাহী বাস (ঢাকা মেট্রো-জ-১৪-১৪৪৭) চাপা দেয়। এতে অটোরিকশায় থাকা পরিবারের সবাই নিহত হন। ঘটনাস্থলে খুশি বালা প্রাণ হারান। বাকিদের হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

দৌলতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক নাফমুন রইস জানান, হাসপাতালে আনার আগেই সবার মৃত্যু হয়েছে।

ভিলেজ লাইনের বাসটি আটক করা হলেও চালক ও সহকারী পালিয়ে গেছেন বলে জানিয়েছেন দৌলতপুর থানার ওসি রেজাউল করীম।
সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

নিউজটি শেয়ার করুন




themesads

© All rights reserved © 2020 crimefolder.com
কারিগরি সহযোগীতায়: Creative Zone IT