বরিশালের গৌরনদীতে যাত্রীবাহী বাসের ভেতর ড্রামে তরুণীর লাশ পাওয়া গেছে

বরিশালের গৌরনদীতে যাত্রীবাহী বাসের ভেতর ড্রামে তরুণীর লাশ পাওয়া গেছে

শফিকুল ইসলাম(এমএ)
স্টাফ রিপোর্টার

বরিশালের গৌরনদীতে যাত্রীবাহী বাসের ভেতর একটি ড্রামে তরুণীর লাশ পাওয়া গেছে। তার ঠিকানাসহ লাশের হত্যার রহস্য উদ্ঘাটন করেছেন গৌরনদী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আফজাল হোসেন।

লাশের নাম ঠিকানা, মিসেস ছাবিনা বেগম, ১১-নভেম্বর-১৯৭৬ পিতা-জনাব সাহেব আলী, মাতা-মাসুদা বেগম, বাসা/হোল্ডিং:৭২৪১, গ্রাম/রাস্তা:৯৯৯, রাস্তা:দিয়াশুর, ওয়ার্ড নং-০৮, ডাকঘর:গৌরনদী-৮২৩০, গৌরনদী পৌরসভা, বরিশাল।

গতকাল শুক্রবার রাত সাতটার দিকে উপজেলার ভুরঘাটা নামক এলাকায় বাসটি থেকে লাশটি উদ্ধার করে গৌরনদী পুলিশ। বাসের ভেতরে ড্রামভর্তি লাশ পাওয়ার বিষয়টি পুলিশকে অবাক করেছে।

এর আগে শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে বরিশাল কেন্দ্রীয় নথুল্লাবাদ বাস টার্মিনাল থেকে ‘ক্লাসিক পরিবহন’র এ বাসটি যাত্রী নিয়ে গৌরনদীর ভুুরঘাটা স্ট্যান্ডের উদ্দেশে ছেড়ে যায়।

বাস স্টাফদের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, পথিমধ্যে বরিশালের প্রবেশদ্বার গড়িয়ারপাড়ে বাসটি থামলে অজ্ঞাত এক যাত্রী ড্রামটি নিয়ে ওঠেন। কিন্তু বাসটি ভুরঘাটা বাসস্ট্যান্ডে পৌছানোর পরপরই ওই ব্যক্তি তড়িঘড়ি করে নেমে যান।

অনেক খোঁজা-খুঁজির পরে যাত্রীকে না পেয়ে স্টাফরা ড্রামটি খুললে দেখতে পায় ভেতরে এক নারীর লাশ। বিষয়টি নিয়ে কোন রকমের বিলম্ব না করে বাসের সুপারভাইজার সংশ্লিষ্ট গৌরনদী থানা পুলিশকে অবহিত করেন। তাৎক্ষণিক গৌরনদী পুলিশের একটি টিম গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে গৌরনদী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আফজাল হোসেন জানান, রক্তাক্ত লাশটি দেখে মনে হচ্ছে তরুণীকে হত্যা করা হয়েছে। এবং লাশটি কোথাও নিয়ে যাওয়ার উদ্দেশে বাসে ওঠানো হয়েছিল। কিন্তু সামনে বিপদ থাকতে পারে এমন ভাবনায় ফেলে পালিয়ে গেছে বহনকারী লোকটি।

এই ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে হত্যা মামলা রুজু করেছে। ওসি মো. আফজাল হোসেন বলেন, তরুণীর লাশ কীভাবে কোথা থেকে বা কে নিয়ে আসছে এমন কিছু প্রশ্নের উত্তর পাওয়া গেছে তবে তদন্তের জন্য গোপন রাখা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন




themesads

© All rights reserved © 2020 crimefolder.com
কারিগরি সহযোগীতায়: Creative Zone IT